১৬ অক্টোবর ২০১৮ ইং
সাপ্তাহিক আজকের বাংলা - ৭ম বর্ষ ৪০সংখ্যা: বার্লিন, সোমবার ০১অক্ট–০৭অক্ট ২০১৮ # Weekly Ajker Bangla – 7th year 40 issue: Berlin, Monday 01Oct-07Oct 2018

বাংলাদেশ দখলের হুমকি বিজেপি নেতার

বিজেপি নেতা সুব্রামনিয়াম স্বামী

প্রতিবেদকঃ DW তারিখঃ 2018-10-03   সময়ঃ 19:34:41 পাঠক সংখ্যাঃ 15

বাংলাদেশে হিন্দুদের উপর অত্যাচার এবং ভারতে বাংলাদেশিদের অনুপ্রবেশ বন্ধ না হলে বাংলাদেশের ভূখণ্ড দখল করে নেয়ার হুমকি দিয়েছেন বিজেপি নেতা সুব্রামনিয়াম স্বামী৷ ভারতের মিডিয়া অবশ্য তাঁর এমন মন্তব্যকে গুরুত্ব দিচ্ছে না৷

আগরতলায় এক সংবাদ সম্মেলনে বিভিন্ন ইস্যু নিয়ে কথা বলার সময় বাংলাদশ প্রসঙ্গে ওই মন্তব্য করেন সুব্রামনিয়াম স্বামী৷ 

এমনিতেই বিতর্কিত মন্তব্য করায় বিজেপি নেতা এবং রাজ্যসভা সাংসদ সুব্রামনিয়াম স্বামীর জুড়ি মেলা ভার৷ অতীতের ধারা বজায় রেখে প্রতিবেশী বাংলাদেশ সম্পর্কে এবার তাঁর বিস্ফোরক মন্তব্য, ‘‘বাংলাদেশে যদি হিন্দুদের উপর নির্যাতন বন্ধ না হয়, তাহলে ভারতের উচিত বাংলাদেশের ভূখণ্ড দখল করা৷'' তাঁর মতে, বাংলাদেশের প্রতি ভারতের সমর্থন অব্যাহত থাকা উচিত৷পাশাপাশি সেদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে সাবধান ক দেওয়া দরকার, যাতে ভারত-বাংলাদেশ সুসস্পর্ক নষ্ট করে দিতে উদ্যত কিছু লোকের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেওয়া হয়৷ তিনি বলেন, ‘‘তাঁরা হিন্দুদের মন্দির ভাংছে, মন্দির ভেঙ্গে মসজিদ করছে৷ হিন্দুদের জোর করে মুসলমান বানাচ্ছে৷ হালে বগুড়া জেলার একটি হিন্দু গ্রামে হিন্দু দেব-দেবীর মূর্তি ভেঙ্গে বাইরে ফেলে দেওয়া হয়৷ ৩০ ঘর হিন্দুর বাস ঐ গ্রামে৷ তাঁরা দারুণভাবে মুষড়ে পড়েছে৷ হিন্দুদের উপর এই ধরনের অত্যাচার যদি হাসিনা সরকার দমন করতে ব্যর্থ হয়, তাহলে, আমার মতে, ভারতের উচিত হবে বাংলাদেশ ভূখণ্ড দখল করা৷''

সুব্রামনিয়াম স্বামী সাংস্কৃতিক গৌরব সংস্থার ত্রিপুরা শাখার এক কর্মসূচিতে যোগ দিতে আগরতলায় গিয়েছিলেন৷ বাংলাদেশ সম্পর্কে আগেও এই ধরনের মন্তব্য করেছেন তিনি৷ ২০১২ সালে তিনি বলেছিলেন পৃথক বাংলাদেশ গঠিত হয় এই ধারনার ভিত্তিতে যে, হিন্দু ও মুসলিম একসঙ্গে শান্তিতে বসবাস করতে পারবে না৷ কিন্তু বাংলাদেশি মুসলিমদের ভারতে অনুপ্রবেশ চলতেই থাকে৷ ভারতে তাঁরা দিব্যি হিন্দুদের সঙ্গে বসবাস করছে৷ তাই যদি হয়, তাহলে তাঁর মতে, পৃথকভাবে মুসলিমদের বাংলাদেশে থাকার আর দরকারটা কী? তাই তাঁর মতে, যত সংখ্যক বাংলাদেশি মুসলিম ভারতে অনুপ্রবেশ করেছে, সেই সংখ্যার অনুপাতে অর্থাৎ এক-তৃতীয়াংশ জমি ভারতকে ফিরিয়ে দেওয়া উচিত বাংলাদেশের, না দিলে বাংলাদেশের ভূখণ্ড দখল করা উচিত ভারতের৷ 

 

একই ধরনের কথা ২০১৪ সালেও বলেছিলেন তিনি৷ তখন বলেছিলেন, ঢাকা যদি অনুপ্রবেশকারীদের ফিরিয়ে নিতে রাজি না হয়, তাহলে আনুপাতিক হারে জমি ভারতকে ছেড়ে দিতে হবে৷ 

পাকিস্তানের নতুন প্রধানমন্ত্রী  ইমরান খানকেও রেয়াত করেননিবিজেপি নেতা সুব্রামনিয়াম স্বামী৷ সরকারি অফিসের চাপরাশি বা পিওনের সঙ্গে তুলনা করেছেন ইমরান খানকে৷ কারণ, তাঁর মতে, কার্যতঃ সরকার চালাচ্ছেন আইএসআই, সামরিক বাহিনী এবং জঙ্গি গোষ্ঠী৷ প্রধানমন্ত্রী খান স্রেফ পুতুলমাত্র৷ কাজেই পাকিস্তানের সঙ্গে আলোচনা অর্থহীন৷ সময়ের অপচয়৷ পাকিস্তান থেকে সন্ত্রাসী অনুপ্রবেশ বেড়েছে ইমরান খানের শাসনে৷ ভারতের উচিত হবে দেশের সামরিক বাহিনীকে তৈরি রাখা এবং সময়মতো একদিন পাকিস্তানকে চার টুকরো (বালুচ, সিন্ধ, পাশতুন এবং পশ্চিম পাঞ্জাবের অবশিষ্ট অংশ) করা৷ ভারতের পর্যবেক্ষক মহল অবশ্য বিজেপি নেতা সুব্রামনিয়াম স্বামীর এই উত্তেজক মন্তব্যকে আমল দিতে নারাজ৷ তাঁদের মতে, এর কোনো রাজনৈতিক গুরুত্ব নেই৷ ভারতের মিডিয়াও এই ধরনের মন্তব্য উপেক্ষা করেছে৷

অনেকেই মনে করছেন, আগামী বছর সাধারণ নির্বাচনকে সামনে রেখে এটা নিছক ভোট ব্যাঙ্কের রাজনীতি৷ শুধু সুব্রামনিয়াম স্বামী কেন, বিজেপিতে আরো কিছু নেতা, মন্ত্রী আছেন, যাঁরা বলেন, মুসলিমরা আদতে রামচন্দ্রের বংশধর৷ কাজেই তাঁদের উচিত, অযোধ্যায় রাম মন্দির নির্মাণ, মথুরায় শ্রীকৃষ্ণ মন্দির এবং বারানসিতে বিশ্বনাথ মন্দির নির্মাণে সহযোগিতা করা৷

 



আজকের কার্টুন

লাইফস্টাইল

আজকের বাংলার মিডিয়া পার্টনার

অনলাইন জরিপ

প্রতিবেশী রাষ্ট্র মিয়ানমার রোহিঙ্গা দেরকে অত্যাচার করে ফলে ২০১৭ তে অগাস্ট ২৫ থেকে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত ১ মাসে ৫ লক্ষ্য রোহিঙ্গা জাতিগোষ্ঠী বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে, আপনি কি মনে করেন বাংলাদেশ শরণার্থী দেরকে আবার ফিরে পাঠিয়ে দিক?

 হ্যাঁ      না      মতামত নেই    

সংবাদ আর্কাইভ